বৃহস্পতিবার, অক্টোবর ২৪, ২০১৯

ক্রিকেট নয়, আনুশকাই কোহলির সব

  • রিপোটারের নাম
  • ২০১৯-০১-২১ ১৩:১২:৩২
image

ক্রিকেটের প্রতি বিরাট কোহলির নিবেদন অনস্বীকার্য। তাঁর ধ্যানজ্ঞানও সব এই ২২ গজের খেলাকে নিয়েই। ক্রিকেটের বর্তমান প্রজন্মের রোল মডেল হয়ে উঠেছেন। কিন্তু স্বয়ং কোহলির কাছে ক্রিকেটের চেয়েও গুরুত্বপূর্ণ বিষয় আছে জীবনে। আর সেটা হলো পরিবার। সম্প্রতি তিনি জানিয়েছেন ক্রিকেট তাঁর জীবনের একটি অংশ কিন্তু পরিবার প্রধানতম গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার।কোহলি বলেছেন, ‘৮ বছর হয়ে গেছে, এখন পরিবারই প্রাধান্য পাবে। আমি নিজে, আনুশকা আর তারপর আমাদের পরিবারই গুরুত্ব পাবে। অবশ্যই ক্রিকেট আমার জীবনেরই অংশ কিন্তু আমি মনে করি পরিবারকে প্রাধান্য দেওয়া উচিত কারণ জীবনের চেয়ে বড় কিছু হয় না। ক্রিকেট জীবনের একটি অংশ, জীবনের চেয়ে বড় কিছু হওয়া উচিত নয়।’তিনি আরও বলেন, ‘আমি এমন অনেককে জানি যার জীবনকে খুবই গুরুত্বের সঙ্গে দেখে, বিষয়টা এমন যে “তুমি যদি ক্রিকেটকে খুব গুরুত্বের সঙ্গে না নাও, তাহলে তুমি যথেষ্ট প্রতিজ্ঞাবদ্ধ নও।”আমি এই নীতিতে বিশ্বাস করি না। একটু বড় করে চিন্তা করলে জীবন সব সময়ই আগে, কারণ অনেক কিছুই ঘটে ও ঘটতে পারে, কিন্তু দিন শেষে আপনি সব সময়ই ঘরে ফিরবেন। তাই আমি মনে করি প্রাধান্য দিতে হবে পরিবারকে, দেওয়াটাই উচিত।’পরিবারকে সবার উঁচুতে অবস্থান দেওয়া এই ক্রিকেটার ধীরে ধীরে নিজেকে নিয়ে যাচ্ছেন সবার উঁচুতে। সম্প্রতি শচীন টেন্ডুলকারকে টপকে গেছেন বিশেষ এক রেকর্ডে। ক্যারিয়ারের উনিশ হাজার রান করতে সময় নিয়েছেন সবচেয়ে কম। দশ হাজার রান করার ক্ষেত্রেও সাবেক সতীর্থ শচীনকে টপকে এই রেকর্ড করেছিলেন।দশ বছর আগে ভারতের হয়ে আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারের ইনিংস শুরু করা কোহলির প্রেমের ইনিংস শুরু হয়েছিল ২০১৩ সালে। বলিউড তারকা আনুশকা শর্মা সঙ্গে শ্যাম্পুর বিজ্ঞাপন করতে গিয়ে পরিচয় হয় এই ক্রিকেটারের। আর প্রেম বিয়েতে পরিণতি পায় ২০১৭ সালে ডিসেম্বরে। কয়েক দিন পর পর একের পর এক রেকর্ড ভেঙে যাচ্ছেন ক্রিকেটে। আর অনুপ্রেরণা যে পরিবার থেকেই পাচ্ছেন, সেটা কি আর বলে দিতে হবে!


এ জাতীয় আরো খবর